• কাজে উৎসাহ যোগাতে আশুলিয়ায় শ্রমিকদের নিয়ে বনভোজন


    সাভার প্রতিনিধি : সারা বছর শুধু কাজ নয় শ্রমিকদের জীবনে একটু চিত্ত-বিনোদনও প্রয়োজন-এই বিষয়টি অনুধাবন করে রাজধানী ঢাকার উপকণ্ঠ আশুলিয়ায় রপ্তানিমুখি একটি তৈরি পোশাক কারখানার মালিকপক্ষ উৎপাদন কর্মকান্ডে শ্রমিকদের উৎসাহ বাড়ানোর লক্ষ্য নিয়ে বনভোজনের আয়োজন করেছেন। শনিবার সকাল থেকে বিকেল পর্যন্ত আশুলিয়ার জিরানী এলাকার শেনজেন মেটাল ইন্ডাষ্ট্রিয়াল লিমিটেড কারখানার প্রায় ১৪’শ শ্রমিক এ বনভোজনে অংশ নেন।

    বনভোজনে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ প্রতিমন্ত্রী ডা. এনামুর রহমান। ডা. এ নামুর রহমানও এসময় শ্রমিকদের সাথে আনন্দে মেথে উঠেন।

    আশুলিয়ার তৈয়বপুর এলাকার বর্ণচ্ছটা পিকনিক স্পর্টে এ বনভোজনের আয়োজন করা হয়।

    মূলত তৈরি পোশাক কারখানায় উৎপাদন কর্মকান্ডে শ্রমিকদের উৎসাহ বাড়ানোর লক্ষ্যে এ বনভোজনের আয়োজন করা হয় ওই পিকনিক স্পর্টে মনোরম পরিবেশে। বনভোজনে শ্রমিকদের জন্য দুপুরের খাবার হিসেবে ছিল-খাসির রেজালা, মুরগীর রেজালা, বিভিন্ন পদের মাছ ও কোমল পানীয়। নৈমিত্তিক পোশাক বাদ দিয়ে সাধ্যমতো একটু সাজগোজ করে নারী-পুরুষ উভয় শ্রমিকরাই পুরো দিনটা হৈ চৈ করে নেচে-গেয়ে অনাবিল আনন্দ উপভোগ করেন।

    শ্রমিকরা জানায়, কখনো একটু আনন্দ উপভোগ করার সুযোগ হয়ে ওঠে না। কর্তৃপক্ষ শ্রমিকদের এই অবস্থাটা বিবেচনা করে একটি দিনের জন্য ব্যতিক্রম ধরনের এ আয়োজনে তারা ব্যাপক আনন্দ পেয়েছেন এবং সারাদিন আনন্দে কেটেছে তাঁদের। শ্রমিক পরিবারের অন্যান্য সদস্যরা এবং আশেপাশের লোকজনও কারখানা কর্তৃপক্ষের এ আয়োজনের প্রশংসা করেছেন।

    কারখানার পরিচালক ওমর ফারুক বলেন, একটি দিনের জন্য শ্রমিকদের বিনোদন দেওয়ার লক্ষ্যে কারখানা কর্তৃপক্ষের এই বনভোজনের আয়োজন। এ ছাড়া শ্রমিকদের বিনোদন দিতে পারলে তারা উৎপাদনে ও মান সম্পন্ন পোশাক তৈরিতে আরো অবদান রাখতে পারবে বলে তিনি মনে করেন।

    বনভোজনে এ সময় আরো উপস্থিত ছিলেন কারখানার চেয়ারম্যান রওশন আলম, ব্যবস্থাপনা পরিচালক মাসুদ পারভেজ মৃধা, পরিচালক আব্দুল্লাহ আল মামুন, সাভার উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মঞ্জুরুল আলম রাজীব, দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ প্রতিমন্ত্রীর সহধর্মিনী রওশন আক্তার। বনভোজন শেষে বিকেলে মনোজ্ঞ এক সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়।

    Spread the love
    Social media & sharing icons powered by UltimatelySocial