• গাজীপুরে জাতির পিতার জন্মবার্ষিকী ও জাতীয় শিশু দিবস পালিত


    গাজীপুর প্রতিনিধি : নানা অনুষ্ঠানের মধ্য দিয়ে গাজীপুরে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মবার্ষিকী ও জাতীয় শিশু দিবস পালিত হচ্ছে। এ উপলক্ষ্যে বুধবার সকালে জেলা প্রশাসকের কার্যালয় প্রাঙ্গণে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ম্যুরালে পুস্পস্তবক অর্পণ করে গভীর শ্রদ্ধা নিবেদন করেন যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী মো: জাহিদ আহসান রাসেল এমপি, গাজীপুর সিটি করপোরেশনের মেয়র মোহাম্মদ জাহাঙ্গীর আলম, গাজীপুর মেট্রোপলিটন পুলিশ কমিশনার খন্দকার লুৎফুল কবির, গাজীপুরের জেলা প্রশাসক এস এম তরিকুল ইসলাম, গাজীপুরের ভারপ্রাপ্ত পুলিশ সুপার এ কে এম জহিরুল ইসলাম সহ বিভিন্ন সরকারী বেরকারী প্রতিষ্ঠানের কর্মকর্তাগণ। পরে ঐতিহাসিক ভাওয়াল রাজবাড়ী মাঠে বেলুন ও পায়রা উড়িয়ে কর্মসুচীর উদ্বোধন করেন যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী জাহিদ আহসান রাসেল এমপিসহ অন্য অতিথিরা।

    এ উপলক্ষ্যে পরে জেলা প্রশাসনের উদ্যোগে শিশু সমাবেশ ও বর্ণাঢ্য র‌্যালী বের করা হয়। র‌্যালীটি শহরের ঐতিহাসিক রাজবাড়ী মাঠ থেকে শুরু হয়ে বিভিন্ন সড়ক প্রদক্ষিণ করে বঙ্গতাজ অডিটরিয়ামে গিয়ে শেষ হয়। পরে বঙ্গতাজ অডিটরিয়ামে আলোচনা সভা, সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান ও পুরষ্কার বিতরণ অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়।

    এছাড়া গাজীপুর মহানগর আওয়ামী লীগের উদ্যোগে দলীয় কার্যালয়ে জাতির জনকের প্রতিকৃতিতে পুষ্পস্তবক অর্পন, কেক কাটা ও আলোচনা সভার আয়োজন করা হয়। অনুষ্ঠানে যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী মো: জাহিদ আহসান রাসেল এমপি, গাজীপুর সিটি করপোরেশনের মেয়র মোহাম্মদ জাহাঙ্গীর আলম, গাজীপুর মহানগর আওয়ামী লীগের সভাপতি এডভোকেট আজম উল্লা খান, মহানগর আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি কাজী আলিমউদ্দিন বুদ্দিন ও এডভোকেট মো: ওয়াজউদ্দিন মিয়া, সাংগঠনিক সম্পাদক মো: মজিবুর রহমান প্রমুখ।

    এ উপলক্ষে গাজীপুর সদর উপজেলার ভাওয়ালগড়, পিরুজালী, মির্জাপুর ইউনিয়ন যুবলীগের আয়োজনে ১০১ পাউন্ড কেক কাটেন গাজীপুর-৩ আসনের সংসদ সদস্য মুহাম্মদ ইকবাল হোসেন সবুজ।

    এদিকে গাজীপুরের শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব মেমোরিয়াল কেপিজে বিশেষায়িত হাসপাতাল চত্বরে আয়োজিত অনুষ্ঠানে মেডিকেল ডিরেক্টর ডা: রাজীব হাসানের সভাপতিত্বে বক্তব্য রাখেন হাসপাতালের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা মো: তৌফিক বিন ইসমাইল। এ উপলক্ষে ডাক্তার ভিজিট, ফিজিওথেরাপি ও পুষ্টিবিদ সহ সকল প্রকার চেকআপ এ বিশেষ ছাড় দেয়া হয়। বিনামূল্যে সাধারণ স্বাস্থ্য পরীক্ষা, কর্তৃপক্ষ কর্তৃক শিশু ওয়ার্ড, শিশু আই সি ইউ ভিজিট, শিশুদের অঙ্কন প্রতিযোগিতা ও রক্তদান কর্মসূচির আয়োজন করা হয়।

    দিবসটি উপলক্ষ্যে বাংলাদেশ উন্মুক্ত বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. এম এ মাননান বিশ্ববিদ্যালয়ের গাজীপুর ক্যাম্পাসে সকালে ‘স্বাধীনতা চিরন্তন’ স্মারক ভাস্কর্যে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের প্রতিকৃতিতে পুস্পস্তবক অর্পণ করে গভীর শ্রদ্ধা নিবেদন করেন।

    দেশব্যাপী মোমবাতি প্রজ্জ্বলন এবং আলোকসজ্জা করে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবর্ষ উদযাপন করেছে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়। মঙ্গলবার দিবাগত রাত ১২.০১ মিনিটে স্বাস্থ্যবিধি মেনে প্রত্যেকটি ভবনের সামনে ১০০ মোমবাতি জ্বালিয়ে উৎসবমুখর পরিবেশে জাতির জনকের জন্মদিন উদযাপন করা হয়।

    জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের নব নিযুক্ত উপাচার্য (রুটিন দায়িত্ব) প্রফেসর ড. মো. মশিউর রহমানের নেতৃত্বে গাজীপুরে মূল ক্যাম্পাস ও রাজধানীর ধানমন্ডিতে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের প্রতিকৃতিতে পুষ্পার্ঘ্য অর্পণ করে শ্রদ্ধা নিবেদন করা হয়।

    বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রশাসন চত্বর থেকে বিশ^বিদ্যালয়ের ভাইস-চ্যান্সেলর প্রফেসর ড. মো: গিয়াসউদ্দীন মিয়া নেতৃত্বে একটি বর্নাঢ্য র‌্যালী বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাস প্রদক্ষিণ করে। শোভাযাত্রা শেষে বিশ্ববিদ্যালয়ের পক্ষে ভাইস-চ্যান্সেলর বঙ্গবন্ধু’র প্রতিকৃতিতে শ্রদ্ধাঞ্জলি অর্পন করেন।

    গাজীপুরস্থ ঢাকা প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের (ডুয়েট) উপাচার্য অধ্যাপক ড. এম. হাবিবুর রহমানের নেতৃত্বে বিশ্ববিদ্যালয়ের মূল ফটকের দেয়ালে স্থাপিত জাতির পিতার প্রতিকৃতিতে পুষ্পস্তবক অর্পণ করেন।

    বাংলাদেশ কৃষি গবেষণা ইনস্টিটিউটের (বারি) মহাপরিচালক ড. মো. নাজিরুল ইসলাম অন্যান্য পরিচালকবৃন্দকে সাথে নিয়ে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ম্যুরালে পুষ্পস্তবক অর্পণের মাধ্যমে দিনের কর্মসূচীর সূচনা করেন।

    জেলার কালীগঞ্জে বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা নিবেদন, আনন্দ র‌্যালী, আলোচনা সভা ও কেক কেটে বঙ্গবন্ধুর জন্মশত বার্ষিকী উদযাপিত হয়েছে। এসময় উপস্থিত ছিলেন উপজেলা চেয়ারম্যান মোয়াজ্জেম হোসেন পলাশ, উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো: শিবলী সাদিক, উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এইচ এম আবু বক্কর চৌধুরী, পৌর মেয়র এস এম রবিন হোসেন প্রমুখ।

    Spread the love