• ব্রেকিংনিউজ: কাপাসিয়ার শীতলক্ষ্যা নদী থেকে উদ্ধারকৃত জীপটি জাপা নেতা হেফজুরের     ::     একুশের প্রথম প্রহরে ভাষা শহীদদের প্রতি রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রীর শ্রদ্ধা নিবেদন     ::     বাজারে আসছে ওয়ালটনের ইন্টেলিজেন্ট ইনভার্টার, ক্যাসেট ও সিলিং টাইপ এসি     ::     অর্পিত দায়িত্বকে চ্যালেঞ্জ হিসেবে নিয়েছি : সিইসি     ::     সংসদীয় গণতন্ত্রের দেশে সংবিধান অনুযায়ী নির্বাচন হবে : নাসিম     ::    
    08_01_2017-Khulnagif

    খুলনায় ভিক্ষুকদের কর্মসংস্থান ও পুনর্বাসনে অনুদান উপকরণ সামগ্রী বিতরণ


    image_print

    খুলনা প্রতিনিধি : খুলনা জেলাকে ভিক্ষুকমুক্ত করণের লক্ষ্যে জেলা প্রশাসনের তত্ত্বাবধানে ৬১৫জন ভিক্ষুককে উপকরণ ও অনুদান প্রদান করা হয়। শনিবার বিকেলে খুলনা সার্কিট হাউজ চত্ত্বরে অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন খুলনা-২ আসনের সংসদ সদস্য মুহাম্মদ মিজানুর রহমান। প্রধান অতিথির বক্তৃতায় সংসদ সদস্য ভিক্ষুকদের উদ্দেশ্যে বলেন, আপনারা মর্যাদার সাথে জীবন যাপন করবেন। কাজ করলে মানুষের সম্মান যায় না, তাই ভিক্ষা না করে কর্মজীবনে ফিরে আসলে সব ধরনের সহযোগিতা করা হবে।

    ক্ষুধা ও দারিদ্র্যমুক্ত বাংলাদেশ গড়তে ভিক্ষুকদের এ ধরনের সহযোগিতা একটি অন্যতম দৃষ্টান্ত হয়ে থাকবে। বঙ্গবন্ধুর স্বপ্ন বাস্তবায়নে আমাদের এই উদ্যোগ অব্যহত থাকবে। আমরা বিশ্বকে দেখাতে চাই বাংলাদেশ ভিক্ষুকের জাতি নয়।

    খুলনা জেলা প্রশাসক নাজমুল আহসানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন খুলনা বিভাগীয় কমিশনার মোঃ আবদুস সামাদ, সিটি মেয়র মোহাম্মদ মনিরুজ্জামান, পুলিশ কমিশনার নিবাস চন্দ্র মাঝি, অতিরিক্ত বিভাগীয় কমিশনার (সার্বিক) মোহাম্মদ ফারুক হোসেন, এডিশনাল ডিআইজি মোঃ হাবিবুর রহমান, পুলিশ সুপার নিজামুল হক মোল্লা, খুলনা সদর থানা আওয়ামীলীগের সভাপতি এ্যাড. সাইফুল ইসলাম, প্রেসক্লাবের সভাপতি এসএম হাবিব ও ইমাম পরিষদের সভাপতি মাওলানা মোঃ সালেহ প্রমূখ।

    অনুষ্ঠানে কর্মঅক্ষম ভিক্ষুকদের রেশনিং এর আওতায় ৩৬৯ জনকে খাদ্যসামগ্রী বিতরণ করা হয়। এছাড়া ১২৬জন ভিক্ষুককে পুরাতন কাপড় বিক্রি, মুদির দোকান, কাঁচা মালের ব্যবসা, হাঁস-মুরগী পালন, পিঠা তৈরি, ওজন মাপা মেশিন, ঝাল-মুড়ি ও চানাচুর বিক্রি, ডিম বিক্রি,আগরবাতী তৈরির মালামাল, টক দই বিক্রি, ঠোঙ্গা বিক্রি, হাড়ি-পাতিল বিক্রি, শাক-সবজি বিক্রির ভ্যান গাড়ি সহ মোট ১৪ প্রকারের উপকরণ বিতরণ করা হয়। খুলনা সমাজ সেবা কার্যালয় থেকে ১২০ জনকে চা এর দোকানের উপকরণ, ভ্যান ও সেলাই মেশিন প্রদান করা হয়।